মেনু নির্বাচন করুন
Text size A A A
Color C C C C
সর্ব-শেষ হাল-নাগাদ: ২৭ ডিসেম্বর ২০১৬

সংস্কৃতিমন্ত্রীর সাথে কাতারের আমিরি দিওয়ানের উপদেষ্টার সৌজন্য সাক্ষাত


প্রকাশন তারিখ : 2016-12-26

সংস্কৃতিমন্ত্রী আসাদুজ্জামান নূর আজ ২৬ ডিসেম্বর ২০১৬ বাংলাদেশ সচিবালয়স্থ তাঁর অফিস কক্ষে বাংলাদেশ সফররত কাতারের আমিরি দেওয়ানের (Amiri Diwan - আমিরি দেওয়ান হলো কাতারস্থ সরকারি কমপ্লেক্স যেখানে কাতারের আমির, ক্লাউন প্রিন্স, প্রধানমন্ত্রী ও মন্ত্রীগণের অফিস অবস্থিত। এটি কাতারের প্রশাসনিক কেন্দ্রবিন্দু) উপদেষ্টা এবং কাতারের সাবেক সংস্কৃতি ও ঐতিহ্য বিষয়ক মন্ত্রী Hamad Bin Abdulaziz Al-Kawari সৌজন্য সাক্ষাত করেন। এসময় সংস্কৃতি বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের সচিব আক্‌তারী মমতাজ, বাংলাদেশে নিযুক্ত কাতারের রাষ্ট্রদূত Ahmed Mohamed Al-Dehaimi এবং সংস্কৃতি বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের সংস্কৃতিক উপদেষ্টা (উপসচিব) মো: মাহবুবুর রহমান উপস্থিত ছিলেন।

কাতারের মনোনীত প্রতিনিধি হিসেবে Hamad Bin Abdulaziz Al-Kawari ২০১৭-২০২১ মেয়াদে UNESCO এর মহাপরিচালক হিসেবে নির্বাচনের জন্য প্রতিদ্বন্দ্বিতা করবেন। এ নির্বাচনের প্রচার কার্যক্রমের অংশ হিসেবে এবং বাংলাদেশের সমর্থন আদায়ের লক্ষ্যে তিনি বর্তমানে বাংলাদেশ সফর করছেন। তিনি এ সফরে   প্রধানমন্ত্রী, পররাষ্ট্রমন্ত্রী, শিক্ষামন্ত্রী ও সংস্কৃতিমন্ত্রীর সাথে সাক্ষাতের ইচ্ছা পোষণ করেছেন। এর অংশ হিসেবে তিনি আজ সংস্কৃতিমন্ত্রী সাথে সাক্ষাত করেন।

সৌজন্য সাক্ষাতে কাতারের আমিরি দিওয়ানের উপদেষ্টা বলেন, ইউনেস্কোর মহাপরিচালক পদে নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দ্বিতার জন্য কাতার সরকার তাঁকে মনোনীত করেছে। এ নির্বাচনের প্রচার কাজে এবং সমর্থন আদায়ের জন্য তিনি ইউরোপ, আফ্রিকাসহ বিভিন্ন দেশ সফর করেছেন। এখন সফর করছেন  এশিয়া। তিনি এ কাজে সর্বপ্রথম বাংলাদেশকেই বেছে নিয়েছেন। ইউনেস্কোর এ পদে জয়লাভের জন্য তিনি বাংলাদেশ সরকারের সমর্থন প্রত্যাশা করেন।

কাতারের আমিরি দেওয়ানের উপদেষ্টাকে বাংলাদেশে স্বাগত জানিয়ে সংস্কৃতিমন্ত্রী বলেন, বাংলাদেশ ও কাতার মুসলিম ভ্রাতৃপ্রতিম দেশ। দীর্ঘদিন ধরে আন্তর্জাতিক বিভিন্ন ইস্যুসহ দ্বিপক্ষিয় ইস্যুগুলোতে দু’দেশ পরস্পরের সাথে আন্তরিকভাবে কাজ করে যাচ্ছে। সহযোগিতার এক্ষেত্র আগামিতে আরোও বিস্তৃত হবে বলে তিনি সৌজন্য সাক্ষাতে আশা ব্যক্ত করেন।

ইউনেস্কোর মহাপরিচালকের পদ অত্যন্ত মর্যাদাসম্পন্ন উল্লেখ করে সংস্কৃতিমন্ত্রী কাতারের আমিরি দিওয়ানের উপদেষ্টাকে প্রচার কাজের অংশ হিসেবে এশিয়ার মধ্যে সর্বপ্রথম বাংলাদেশকে বেছে নেওয়া জন্য আন্তরিক ধন্যবাদ জানান । পাশাপাশি উল্লিখিত পদে তাঁর প্রতিদ্বন্দ্বিতার প্রশংসা করেন এবং তাঁকে শুভকামনা জানান।

আসাদুজ্জামান নূর বলেন, বাংলাদেশের সাথে মধ্যপ্রচ্যসহ পৃথিবীর বিভিন্ন দেশের সাংস্কৃতিক চুক্তি ও সাংস্কৃতিক বিনিময় কার্যক্রম চালু রয়েছে। কিন্তু কাতারের সাথে নেই। দু’দেশের মধ্যে এ বিনিময়  কার্যক্রম চালু হলে তা ভ্রাতৃত্বের বন্ধনকে আরো দৃঢ় করবে বলে মন্তব্য করে তিনি কাতারের উপদেষ্টাকে এ ব্যাপারে সহযোগিতার আহ্বান জানান।

মন্ত্রী ১৭তম এশিয় দ্বি-বার্ষিক চারুকলা প্রদর্শনীতে কাতারের অংশগ্রহণকে সাধুবাদ জানান।

 


Share with :
Facebook Facebook